2055 People Visite This Lesson.

বাংলা সাহিত্যের ইতিহাস (Part -6 : আধুনিক যুগ)





বাংলা সাহিত্যের পাঠনের সুবিধার জন্য বাংলা সাহিত্যের ইতিহাসকে তিনটি যুগে ভাগ করা হয়েছে ।
# ব্যাপ্তিকাল : ১৮০০-বর্তমান
# প্রধান লক্ষণ : আত্মচেতনা ও জাতীয়তাবাদ
# প্রধান বৈশিষ্ট্য : মানবের জয়জয়কার 

আধুনিক যুগ (১৮০১- বর্তমান)

 

   আধুনিক যুগের উন্মেষপর্ব ও বাংলা গদ্যের সূচনা

 

‘রাজা প্রতাপাদিত্য চরিত্র’ গ্রন্থটির প্রণেতা – রামরাম বসু

বাংলা গদ্যের জনক – ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর

বাংলা সাহিত্যে গদ্যের সূচনা হয় – উনিশ শতকে

ইয়ং বেঙ্গল হলো – ইংরেজি ভাবধারাপুষ্ট বাঙালি যুবক

ফোর্ট উইলিয়াম কলেজে বাংলা বিভাগ খোলা হয় – ১৮০১ সালে

‘বত্রিশ সিংহাসন’ রচনা করেন – মৃত্যুঞ্জয় বিদ্যালস্কার

‘ঢাকা মুসলিম সাহিত্য সমাজ’ এর প্রধান লেখক ছিলেন – কাজী আবদুল ওদুদ, আবুল হুসেন প্রমুখ

‘লিপিমালা’ রচনা করেছেন – রামরাম বসু

‘ফোর্ট উইলিয়াম কলেজ’ প্রতিষ্ঠিত হয় – ১৮০০ সালে

ঢাকার ‘মুসলিম সাহিত্য সমাজ’ এর প্রতিষ্ঠা – ১৯২৬ খ্রিস্টাব্দ

রামরাম বসুর লেখা – লিপিমালা

‘বাংলা একাডেমি’ প্রতিষ্ঠিত হয় – ১৯৫৫ সালে

বাংলা গদ্যের বিকাশে যে বিদেশির অবদান সর্বাধিক – উইলিয়াম কেরি

‘ফোর্ট উইলিয়াম যুগে’ সবচেয়ে বেশি গ্রন্থ রচনা করেছেন – মৃত্যুঞ্জয় বিদ্যালংকার

ফোর্ট উইলিয়াম কলেজ প্রতিষ্ঠিত হয় – ১৮০০ খ্রিস্টাব্দে

আধুনিকতার লক্ষণ – স্বদেশপ্রেম ও মানবতাবাদ

ফোর্ট উইলিয়াম কলেজে বাংলা গ্রন্থ প্রণয়নকারী দুজন পণ্ডিত - মৃত্যুঞ্জয় বিদ্যালঙ্কার ও রামরাম বসু

ফোর্ট উইলিয়াম কলেজ থেকে প্রকাশিত প্রথম বই - ‘রাজা প্রতাপাদিত্য চরিত্র’

ফোর্ট উইলিয়াম কলেজ থেকে প্রকাশিত দ্বিতীয় বই – উইলিয়াম কেরি রচিত ‘কথোপকথন’

বাংলা ভাষায় মুদ্রিত প্রথম গ্রন্থের নাম - কথোপকথন

শ্রীরামপুর মিশন প্রতিষ্ঠিত হয় - ১৮০০ খ্রিস্টাব্দে

রংপুরে ‘বার্তাবহ যন্ত্র’ নামে একটি ছাপাখানা প্রতিষ্ঠিত হয় – ১৮৪৭ সালে

ঢাকায় প্রথম ছাপাখানা প্রতিষ্ঠিত হয় – ১৮৬০ সালে

বাংলা সাহিত্যের প্রথম গদ্যগ্রন্থ – ‘কৃপার শাস্ত্রের অর্থভেদ’

মোহামেডান লিটারেরি সোসাইটি প্রতিষ্ঠা করেন – আবদুল লতিফ

মোহামেডান লিটারেরি সোসাইটি প্রতিষ্ঠার লক্ষ্য ছিল – মুসলমানদের জীবনের উন্নতি সাধন

‘বঙ্গীয় মুসলমান সাহিত্য সমাজ’ প্রতিষ্ঠিত হয় – ১৯১১ সালে

‘ঢাকা মুসলিম সাহিত্য সমাজ’ –এর মাধ্যমে সূত্রপাত হয় – ‘বুদ্ধির মুক্তি’ আন্দোলন

ঢাকা মুসলিম সাহিত্য সমাজএর মুখপাত্র – ‘শিখা’ পত্রিকা

বাংলা একাডেমি ভবনের পুরাতন নাম – বর্ধমান হাউস

বাংলা একাডেমির প্রথম মহিলা মহাপরিচালক – ড. নীলিমা ইব্রাহীম

‘শিখা’ পত্রিকার স্লোগান ছিল – ‘জ্ঞান যেখানে সীমাবদ্ধ, বুদ্ধি যেখানে আড়ষ্ট, মুক্তি সেখানে অসম্ভব’ ।

ফোর্ট উইলিয়াম কলেজে বাংলা ভাষার চর্চা করতেন – রামরাম বসু

বাংলা একাডেমি থেকে প্রকাশিত পত্রিকার সংখ্যা – ৬ টি । যথা :

বাংলা একাডেমী পত্রিকা

গবেষণামূলক

ত্রৈমাসিক

উত্তরাধিকার

সৃজনশীল সাহিত্য

মাসিক (পূর্বে ত্রৈমাসিক ছিল)

ধান শালিকের দেশ

কিশোর সাহিত্য

ত্রৈমাসিক

বাংলা একাডেমি বিজ্ঞান পত্রিকা

বিজ্ঞান বিষয়ক

ষাণ্মাসিক

লেখা

-    

মাসিক

বাংলা একাডেমি জার্নাল

-     

ষাণ্মাসিক

         

 

         পত্রিকা, সাময়িকী ও সম্পাদক

‘সবুজপত্র’ প্রকাশিত হয় – ১৯১৪ সালে

‘ইয়ং বেঙ্গল’ গোষ্ঠীর মুখপাত্ররূপে যে পত্রিকা প্রকাশিত হয় – জ্ঞানান্বেষণ

হরিনাথ মজুমদার সম্পাদিত পত্রিকার নাম – গ্রামবার্তা প্রকাশিকা

নিচের যে উপন্যাসে গ্রামীণ সমাজ জীবনের চিত্র প্রাধান্য লাভ করেনি – সীতারাম

‘সমাচার দর্পণ’ পত্রিকার সম্পাদক ছিলেন – জন ক্লার্ক মার্শম্যান

‘তত্ত্ববোধিনী’ পত্রিকার সম্পাদক ছিলেন – অক্ষয়কুমার দত্ত

‘পূর্বাশা’ পত্রিকার সম্পাদক ছিলেন – সঞ্জয় ভট্টাচার্য

বাংলা সাহিত্যে কথ্যরীতির প্রচলনে যে পত্রিকার অবদান বেশি – সবুজপত্র

বাংলা ভাষার প্রথম সাময়িক পত্র – দিগ্‌দর্শন

নজরুল ইসলামের সম্পাদিত পত্রিকা - ধূমকেতু

সাপ্তাহিক ‘সুধাকর’ –এর সম্পাদক – শেখ আব্দুর রহিম

মাসিক মোহাম্মদী প্রকাশিত হয় – ১৯২৭ সালে 

ঢাকা থেকে প্রকাশিত একটি পত্রিকা -  ক্রান্তি

‘বঙ্গদর্শন’ পত্রিকার প্রথম সম্পাদক ছিলেন – বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়

সিকান্‌দার আবু জাফর সম্পাদিত পত্রিকাটির নাম – সমকাল

‘সওগাত’ পত্রিকার সম্পাদক ছিলেন – মোহাম্মদ নাসিরউদ্দীন

‘তত্ত্ববোধিনী পত্রিকা’ প্রথম প্রকাশিত হয় – ১৮৪৩ সালে

‘বঙ্গদর্শন’ পত্রিকা প্রথম প্রকাশিত হয় – ১৮৭২ সালে

যার সম্পাদনায় ‘সংবাদ প্রভাকর’ প্রথম প্রকাশিত হয় – ঈশ্বরচন্দ্র গুপ্ত

‘মোসলেম ভারত’ নামক সাহিত্য পত্রিকার সম্পাদক ছিলেন – মোজাম্মেল হক

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জগন্নাথ হলে থাকাবস্থায় বুদ্ধদেব বসু যে পত্রিকা সম্পাদনা করতেন, তার নাম বাসন্তিকা

তত্ত্ববোধিনী পত্রিকার সম্পাদক ছিলেন – অক্ষয়কুমার দত্ত

‘সবুজপত্র’ কত সালে প্রকাশিত হয় – ১৯১৪ সালে

‘সওগাত’ পত্রিকার সম্পাদক ছিলেন – মোহাম্মদ নাসির উদ্দীন

‘আলালের ঘরে দুলাল’ যার লেখা প্যারীচাঁদ মিত্র

বঙ্গদূত পত্রিকাটি প্রকাশিত হয় – ১৮২৯ সালে

ভারতবর্ষের প্রথম মুদ্রিত সংবাদপত্র – ‘বেঙ্গল গেজেট’